লকের অভিজ্ঞতাবাদের সংক্ষিপ্ত বিবরণ দাও।

লকের অভিজ্ঞতাবাদ


প্রখ্যাত অভিজ্ঞতাবাদী ব্রিটিশ দার্শনিক জন লকই হলেন প্রথম দার্শনিক যিনি অভিজ্ঞতাবাদের একটি সুস্পষ্ট ও সুসংহত রূপ তুলে ধরেছেন। তাঁর মতে, অভিজ্ঞতাই হল জ্ঞানের মৌল উপাদান। কারণ, অভিজ্ঞতার মাধ্যমেই আমরা জ্ঞান লাভ করি। তাঁর মতে, আমাদের অভিজ্ঞতা আসে দুটি পথ ধরে। এই দুটি পথের একটি হল সংবেদন (sensation) এবং অপরটি হল অন্তর্দর্শন (reflection)। সংবেদনের মাধ্যমে আমরা বাহ্য বস্তুর জ্ঞান লাভ করি, আর অন্তর্দর্শনের মাধ্যমে লাভ করি আন্তর বিষয়ের জ্ঞান।

জ্ঞানের উৎস: লকের মতে, আমাদের সমস্তপ্রকার জ্ঞানের মৌল উৎস হল ধারণা (idea)। ধারণা দু-প্রকারㅡ[1] সরল ধারণা (simple idea) এবং [2] জটিল ধারণা (Complex idea)। জটিল ধারণাকে বিশ্লেষণ করলে আমরা পাই একাধিক সরল ধারণা। এই সরল ধারণাই হল জ্ঞানের মৌল উপাদান। সরল ধারণাগুলিকে আমরা আমাদের ইন্দ্রিয় সংবেদন তথা অভিজ্ঞতার মাধ্যমে জানতে পারি। তাঁর মতে, সরল ধারণাগুলিকেই আমরা প্রত্যক্ষ করতে পারি। ধারণার পশ্চাতে যে বিষয় আছে সেগুলিকে আমরা প্রত্যক্ষ করতে পারি না। সেগুলিকে অনুমান করে জানি বলে দাবি করি। 

জ্ঞানের স্বরূপ: লক উল্লেখ করেন যে, জন্মাবার সময় থেকে আমাদের মন

থাকে এক অলিখিত সাদা কাগজের মতো। সেখানে আগে থেকে কোনো কিছুই মুদ্রিত থাকে না। অভিজ্ঞতার কালিতেই সেখানে সব কিছু মুদ্রিত হয় এবং সেগুলিকেই আমরা জানতে পারি। অভিজ্ঞতার কারণে আমাদের মনে যা মুদ্রিত হয়, তাকেই বলা হয় ধারণা (idea)। এর মাধ্যমেই আমরা পরোক্ষভাবে জ্ঞান অর্জন করি। কিন্তু ধারণাই জ্ঞান নয়। লকের মতে, ধারণাগুলির মধ্যে মিল বা অমিল প্রত্যক্ষই হল জ্ঞান। যেমন 'আকাশ নীল', 'নীল সবুজ নয়' ইত্যাদি। নিছক আকাশের ধারণাটি অথবা নিছক নীল-এর ধারণাটি জ্ঞান নয়। কিন্তু 'আকাশ' ও 'নীল'-এই দুটি ধারণার মধ্যে মিল প্রত্যক্ষ করেই আমরা বলতে পারি যে 'আকাশ নীল'। অনুরূপভাবে নীল ও সবুজের অমিল প্রত্যক্ষ করেই আমরা বলতে পারি যে, 'নীল সবুজ নয়'।

জ্ঞেয় বিষয়ের প্রতিনিধি হিসেবে ধারণা: অভিজ্ঞতার পূর্বে আমাদের

মনে কোনো ধারণাই থাকে না বলে লক আন্তর ধারণার অস্তিত্বকে নস্যাৎ করেছেন। কারণ তাঁর মতে, এরূপ ধারণার কোনো প্রত্যক্ষযোগ্যতা নেই। আমরা শুধু সেই ধারণাই আছে বলে দাবি করি, যার প্রত্যক্ষযোগ্যতা আছে। এরূপ প্রত্যক্ষযোগ্য সরল ধারণার মাধ্যমে আমরা বস্তু সম্পর্কে পরোক্ষভাবে জ্ঞান লাভ করি। তাঁর মতে, ধারণা হল জ্ঞেয় বিষয়ের প্রতীক বা প্রতিবিম্ব (copy)। তাই লকের জ্ঞান সম্পর্কিত মতবাদকে প্রতিবিম্ববাদ বা প্রতীকবাদ নামে অভিহিত করা হয়। লক তাই বলেন যে, বুদ্ধিতে এমন কিছু নেই, যা পূর্বে ইন্দ্রিয়ের মধ্যে ছিল না।

আরোহ পদ্ধতির অনুসরণ: জ্ঞানতত্ত্বের ক্ষেত্রে লক যে পদ্ধতি অনুসরণ করেছেন, তা হল আরোহ পদ্ধতি। লক দাবি করেন যে, আমাদের জ্ঞানের পদ্ধতি কখনোই অবরোহমূলক হতে পারে না। কারণ, আমাদের সমস্তপ্রকার ধারণা ও জ্ঞান নিঃসৃত হয় অভিজ্ঞতা থেকে। অভিজ্ঞতার মাধ্যমেই আমরা বিশেষের জ্ঞান পাই এবং ওই বিশেষ বিশেষ জ্ঞানের মাধ্যমেই আমরা সাধারণ বা সার্বিক জ্ঞান লাভ করি।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ